Slider

Theme images by kelvinjay. Powered by Blogger.

ভিডিও

রাজ্য

দেশ

খেলা

বিনোদন

আন্তর্জাতিক

ফটো গ্যালারি

» » বিক্ষিপ্ত ঘটনা ছাড়া প্রায় নির্বিঘ্নেই শিলিগুড়ি মহকুমা জুড়ে পালিত হলো বিজেপি -র ডাকা বনধ্

উজ্জ্বল ভট্টাচার্য  (রিপোর্টার) শিলিগুড়ি, ২৬শে সেম্পেটম্বর' ২০১৮ : বুধবার ভারতীয় বিক্ষিপ্ত ঘটনা ছাড়া প্রায় নির্বিঘ্নেই পালিত হয় শিলিগুড়ি মহকুমা জুড়ে।জনতা পার্টি (বিজেপি)  - র ডাকা  ১২ ঘন্টার বনধ্  কিছু বিক্ষিপ্ত ঘটনা ছাড়া প্রায় নির্বিঘ্নেই পালিত হয় শিলিগুড়ি মহকুমা জুড়ে। শিলিগুড়ি শহর ও শহর সংলগ্ন এলাকা ছাড়াও শিলিগুড়ি মহকুমা জুড়েই বনধ্ সমর্থককারি স্থানীয় বিজেপি নেতাকর্মীদের এবং বনধ বিরোধী স্থানীয় তৃনমুল কংগ্রেসের নেতাকর্মীদের তৎপরতা প্রায় সব এলাকায় ছিলো চোখে পড়ার মতো। পাশাপাশি শিলিগুড়ি মহকুমা জুড়েই বনধ্ কে ঘিরে কোনোরকম অপ্রতিকর ঘটনা ঠেকাতে পুলিশি টহল ও তৎপরতাও লক্ষ্য করা গেছে। সবমিলিয়ে এবারের বনধকে ঘিরে টানটান উত্তেজনার মধ্যেই আরও একটি বনধের সাক্ষী হয়ে থাকলো শিলিগুড়ি মহকুমাবাসি সহ এই রাজ্যের সাধারণ মানুষ।
উত্তর দিনাজপুর জেলার  ইসলামপুরের দাড়িভিট উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষক  নিয়োগ নিয়ে আন্দোলনকে কেন্দ্র করে দুই ছাত্রের মৃ্র্তু্র ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার  ১২ ঘন্টার বনধ্ ডাকে ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) । এদিন সকাল থেকেই শিলিগুড়ির বিভিন্ন এলাকায় বনধের সমথর্নে এবং বনধ সফল করতে পথে নামেন বিজেপি নেতাকর্মীরা।  পাশাপাশি বনধের বিরোধিতায় সকাল থেকেই নিজ নিজ এলাকায় ও শিলিগুড়ি শহর এবং শহর সংলগ্ন বিভিন্ন এলাকায় পথে নামতে দেখা যায়  তৃনমূলের স্থানীয় নেতাকর্মীদের। শহরে ও মহকুমা জুড়ে বিভিন্ন স্থানে মোতায়েন করা হয়  বিশাল পুলিশ বাহিনী। শিলিগুড়ির মূল বাজারগুলি ও রাস্তার পাশের দোকান প্রায় বন্ধই ছিল।  শহরে অন্যান দিনের তুলনায় রাস্তায় যানবাহনের সংখ্যা ছিল অনেক কম।  কিছু টোটা, সিটি অটো, রিকশা চলাচল করতে দেখা যায়,  সরকারি যানবাহন ছিল স্বাভাবিকভাবেই তবে যাত্রী সংখ্যা ছিল অন্যান্য দিনের তুলনামুলকভাবে অনেক কম। শিলিগুড়ির জলপাই মোড়ের কাছে সরকারি বাস হামলা চালানোর অভিযোগ ওঠে ঐ এলাকার  স্থানীয় কয়েকজন বিজেপি কর্মীদের বিরুদ্ধে। পুলিশ এঘটনায় ঐ এলাকার দুই জন বিজেপি কর্মীকে আটক করে বলে পুলিশ – প্রশাসন সূত্রে জানা যায়। এ দিন আরও জানা যায় যে শিলিগুড়ি শহর  ও শহর সংলগ্ন এন জে পি – র মাইকেল কলোনি এলাকায় পুলিশের সামনেই তৃনমূল কংগ্রেস এবং বিজেপি কর্মীদের মধ্যে ঝামেলা বাধে। এই নিয়ে সামান্য উত্তেজনা দেখা দেয় পরে পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ দিন সকালে শিলিগুড়ির ভেনাস মোর এ হাসমি বিজেপি বা বনধ সমর্থককারিূদের সাথে পুলিশের ধস্তাধস্তি হয়।  পুলিশ সূত্রে জানা গেছে বিভিন্ন এলাকা থেকে এদিন পুলিশ মোট প্রায় নব্বই জনকে গ্রেপ্তার করেছে। এন জে পি সংলগ্ন এলাকায় প্রায় এগারোটি বাইক ও স্কুটি ভাঙচুর হয়েছে। তবে কঠোর পুলিশি নিরাপত্তার মধ্যে দুএক’টি বিক্ষিপ্ত ঘটনাছাড়া বনধ নির্বিঘ্নেই কেটেছে। বিজেপি র  পক্ষ থেকে এদিনের বনধ সফল হয়েছে বলে দাবি করলেও তৃনমূল কংগ্রেসের পক্ষে এদিনের বনধ সাধারণ মানুষ প্রত্যাক্খান করেছে বলেই দাবী করেছে।



«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post