Slider

Theme images by kelvinjay. Powered by Blogger.

ভিডিও

রাজ্য

দেশ

খেলা

বিনোদন

আন্তর্জাতিক

ফটো গ্যালারি

» » নিয়মের জালের ফাঁক গলে দেদার বিকোচ্ছে চুনো ইলিশ


প্রদীপ সাঁতরা -নিয়মের জালের ফাঁক দিয়ে  মাত্র ১ ইঞ্চি ইলিশ দেদার বিকোচ্ছে শ্রীরামপুর পাইকারি মাছের বাজারে।  নিয়ম করাই সার কিন্তু সেই নিয়ম আর বাস্তবের রূপান্তরিত হয় না। যার জেরে খোলা বাজারে দেদার বিকোচ্ছে ছোট ইলিশ। ছোট বললে ভুল হবে একেবারে পোনা কিংবা সদ্যোজাত বলতে যা বোঝায়। শ্রীরামপুরে খোলা বাজারে  বিক্রি হচ্ছে চুনো ইলিশ । ভ্রুক্ষেপ নেই পুলিশ প্রশাসনের। সরকারি নিয়মে চারশো গ্রামের নিচে ইলিশ মাছ ধরা কিংবা ইলিশ মাছ বিক্রি করা সম্পূর্ণ দণ্ডনীয় অপরাধ।  সেই অপরাধ শ্রীরামপুরের খোলাবাজারে  অবাধে চলছে।  তবে এখানে দণ্ড দেওয়ার মতো কেউ নেই। যদিও স্থানীয় মৎস ব্যবসায়ী সমিতির বক্তব্য আমরা এ বিষয়ে পুলিশ প্রশাসনকে জানাব ।  তবে যারা সেই সমস্ত ইলিশ মাছ বিক্রি করছেন তাঁদের বক্তব্য পুলিশ প্রশাসনের কোনও নজরই নেই জেলেরা এই সমস্ত মাছ ধরেই আমাদের কাছে নিয়ে আসছে তাই আমরা সেগুলি কিনে বিক্রি করছি। আমাদের কোনও অপরাধ নেই সেই সমস্ত জেলেদের উপর ধরপাকড় করলেই এই মাছ বাজারে আসা বন্ধ হবে। যে মাছের আড়তে  ছোট ছোট ইলিশ বিক্রি হচ্ছে সেই ব্যবসায়ী উত্তেজিত হয়ে জানান আপনার আগে জাল তৈরীর কোম্পানিকে কি আটকান বাজারে ছোট মাছ  এলে তো আমরা বিক্রি করব। শ্রীরামপুর মৎস্য ব্যবসায়ী সমিতির সেক্রেটারি  ইন্দ্রনাথ চক্রবর্তী বলেন " সমিতির পক্ষ থেকে সকলকে জানানো হয়েছে ছোট ইলিশ মাছ বিক্রি যেন না করা হয়। কিন্তু তারপরও যদি কেউ এই ধরনের কাজ করে সমিতি কতভাবে যে ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয় সেটা সেটা আমরা নেব। সরকারি নিয়ম যেটা রয়েছে সেটা সকলকেই মানতে হবে।"অপর এক ব্যবসায়ী পূলক শীল জানান  " ছোট ইলিশ বিক্রি বন্ধ করা আমাদের পক্ষেই ভালো কারণ আগামী দিনে আমরা বড় ইলিশ বিক্রি করলে বেশি মুনাফা পাব। এভাবে ছোট ইলিশ বিক্রি করতে থাকলে আগামী দিন আমরা বড় ইলিশ বাজারে পাবনা। এই বিষয়টা সকলকে মাথায় রেখে চলতে হবে এবং প্রশাসনের পক্ষ থেকে যে নিয়ম করা হয়েছে সেটা সকলেরই মানা উচিত।

«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post